1G 2G 3G 4G 5G সম্পর্ক

1G 2G 3G 4G 5G সম্পর্কে জ্ঞানর্জন:

প্রায় সকলের হাতে একটি করে মোবাইল (চলমান) আছে। প্রতিটি মোবাইলে একটি করে সিম কার্ড আছে । কোনটা 2G,কোনটা 3G,কোনটা 4G ।

আমরা অনেকেই g  কথাটির অর্থ জানিনা। এর পূর্ণ রূপ  হল Generation , মানে  প্রজন্ম ।

1G (প্রথম প্রজন্ম):

1G

প্রথম প্রজন্মের পরিকল্পনা করা হয় 1980 নাগাদ। এই প্রজন্মে মোবাইল গুলো ছিল অতি সাধারণ মানের যা আমেরিকাতে প্রথম প্রচলন হয়। এই সময় কেবল কথা বলা যেতো , বার্তা কিংবা ইন্টারনেট পরিষেবা পরিষেবা বাবহার করা যেত না।  গতি ছিল 2.4 কিলো বাইট প্রতি সেকেন্ড । ফোনের  ব্যাটারি ততোটা সময় পরিষেবা দিতনা ।

2G ( দ্বিতীয় প্রজন্ম ):             1G 2G 3G 4G 5G সম্পর্ক 5

প্রথম প্রজন্মের পরিকল্পনা করা হয় 1991  নাগাদ। এই প্রজন্মে মোবাইল গুলো ছিল প্রথম প্রজমের থেকে একটু উন্নত। প্রথম প্রচলন হয় ফিনল্যান্ড এ , যা বাচ্য(কথা বলার) এর সাথে সাথে বার্থ প্রেরণ করা যেত। কিছু কিছু মোবাইলে ইন্টারনেট পরিষেবাও বাবহার করা যেত। এই মোবাইল গুলি দিয়ে ছবি তোলাও যেত । গতি 64 কিলো  বাইট প্রতি সেকেন্ড পর্যন্ত হয়।

3G ( তৃতীয় প্রজন্ম ):            1G 2G 3G 4G 5G সম্পর্ক 2

প্রথম প্রজন্মের পরিকল্পনা করা হয় 2004  নাগাদ। এই প্রজন্মে মোবাইল গুলো ছিল প্রথম প্রজমের থেকে অনেক  উন্নত।  তৃতীয় প্রজন্মের ফোন গুলি কথা বলা,বার্তার পাশা পাশি  কথার সঙ্গে সঙ্গে ছবিও(ভিডিও কল) দেখা শুরুহয়  । এছাড়াও GPS , আপ,গেম ও আর অনেক কিছুই শুরু হয়। গতি 2 মেগা  বাইট প্রতি সেকেন্ড পর্যন্ত হয়।

4G ( চতুর্থ প্রজন্ম ):                    1G 2G 3G 4G 5G সম্পর্ক 3

প্রথম প্রজন্মের পরিকল্পনা করা হয় 2009  নাগাদ । এটি আর অনেক বেশি উন্নত ,তৃতীয় প্রজন্মের সব কিছুর পাশা  পাশি HD বা উচ্চ মাত্র (High Definition) কলের পরিষেবা দেয়। গতি 400 মেগা  বাইট প্রতি সেকেন্ড পর্যন্ত হয়।

5G ( পঞ্চম প্রজন্ম ):                1G 2G 3G 4G 5G সম্পর্ক 4

এই প্রজন্মের পরিকল্পনা করা হয় 2019  নাগাদ । এটি পূর্বেকার সব প্রজন্মের থেকে আর অনেকটা অতি আধুনিক পরিষেবা প্রদান করে । গতি 10 গিগা  বাইট প্রতি সেকেন্ড পর্যন্ত হয়।